সুনামগঞ্জে বিকাশের তিন প্রতারক আটক

সুনামগঞ্জে বিকাশের তিন প্রতারক আটক

সুনামগঞ্জ সংবাদদাতা :: সুনামগঞ্জে বিকাশে প্রতারণার দায়ে ৩ জনকে আটক করেছে র‍্যাপিড এ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‍্যাব)-৯ এর একটি অভিযানিক দল।
মঙ্গলবার রাত ২টার দিকে সুনামগঞ্জের জগন্নাথপুর উপজেলা হবিবপুর গ্রাম থেকে মো. ময়নুল হক (২৯), হানিফ আহম্মেদ (৩৮) ও পারভিন বেগম (৩৮) নামে তিন ব্যক্তিকে আটক করে র‍্যাব -৯ এর সিপিসি ৩ ইউনিট। এসময় তাদের কাছ থেকে প্রতারণায় ব্যবহার করা সরঞ্জামসহ নগদ ১ লক্ষ ৩৫ হাজার টাকা উদ্ধার করে র‍্যাব।
বুধবার দুপুরে সুনামগঞ্জের র‍্যাবের কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনের সাংবাদিকদের এ বিষয়ে নিশ্চিত করেন র‍্যাব-৯ সিপিসি-৩ এর সহকারী পুলিশ সুপার মো. আব্দুল্লাহ রাসেল।
তিনি জানান, গেল ১৫ মে সুনামগঞ্জের ছাতকে প্রতারণার শিকার এক ভিকটিম অভিযোগ দিলে আমরা এ চক্রের সন্ধান চালিয়ে যাই, এরই অংশ হিসেবে গতকাল মধ্যরাত থেকে ভোর পর্যন্ত অভিযান চালিয়ে আমরা তাদের আটক করি৷ আমরা প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে জানতে পেরেছি এই চক্রটি এখন পর্যন্ত প্রতারণার মাধ্যমে ৮-৯ লক্ষ টাকা হাতিয়ে নিয়েছে। এই চক্রটি ১ বছর ধরে সক্রিয় তারা বিভিন্ন নামে বেনামে সিমকার্ড সংগ্রহ করে মানুষের কাছে প্রতারণা করে আসছে। তাদের টার্গেট ব্যবসায়ী, এছাড়া তারা এক জায়গা থেকে কখনো টাকা তুলতো না বিভিন্ন জায়গায় ঘুরে ঘুরে বিকাশের দোকান থেকে টাকা তুলতো। আমরা তাদের কাছ থেকে একটি ল্যান্ডফোন, ১২টি মোবাইল, বিভিন্ন ব্যাংকের চেক বই, এটিএম কার্ডসহ ১ লক্ষ ৩৫ হাজার ৬০০ টাকা উদ্ধার করেছি।
সহকারী পুলিশ সুপার মো. আব্দুল্লাহ রাসেল মোবাইল অপারেটর কোম্পানিগুলোকে তাদের সিম রেজিস্ট্রেশনে আরও কার্যকারী হওয়ার পরামর্শ দিয়ে বলেন, মোবাইল অপারেটরগুলোর সিম রেজিস্ট্রেশনে আরও সর্তক হওয়া প্রয়োজন কারণ সিম রেজিস্ট্রেশনে ত্রুটি থাকার ফায়দা নেয় প্রতারক চক্র। এছাড়া বিকাশে যেই নাম্বার দিয়ে একাউন্ট খোলা হবে সেটি যেন একমাত্র জাতীয় পরিচয় নাম্বার অনুযায়ী দেয়া হয় তাহলে আমাদের অভিযান চালাতে সুবিধা হবে কারণ আমরা সিমের উপর ভরসা করে অভিযান চালালে আমাদের অনেক বেগ পেতে হয়।